মেনু নির্বাচন করুন

বাংলাদেশ বনশিল্প উন্নয়ন কর্পোরেশন,কাপ্তাই

লাম্বার প্রসেসিং কমপেস্নক্র্ ও করাতকল প্রকল্প(এল.পি.সি), কাপ্তাই,রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা বশিউক এর একটি বৃহৎ শিল্প ইউনিট। এই ইউনিটটি পার্বত্য চট্রগ্রামের গভীর সংরক্ষিত বনাঞ্চল থেকে বশিউক কর্তৃক,আহরিতব্য বনবিভাগের কাঠের উপর নির্ভরশীল একটি  প্রকল্প । কর্ণফুলী কাঠ আহরণ ইউনিটের (৩১/০৩/২০০৫ ইং তারিখে পে-অফকৃত) মাধ্যমে যান্ত্রিক ও হাতী দ্বারা আহরিত পরিপক্ক ও উন্নতমানের গোলকাঠের নির্ভরতার ভিত্তিতে ১৯৬৬-৬৭ ইং সালে এই প্রতিষ্ঠানটি সৃষ্টি করা হয়েছিল। প্রতি বছর পরিবেশ ও বন মন্ত্রনালয়/বনবিভাগ কর্তৃক  কর্ণফুলী কাঠ আহরণ ইউনিটের অনুকুলে কুপ বরাদ্দ হত এবং সেই কাঠ যান্ত্রিক ও হাতী দ্বারা আহরণ করিয়া (সংগ্রহ ও বিক্রয়  প্রতিষ্ঠান) কাপ্তাই এর মাধ্যমে বশিউকের মাধ্যমে এর শিল্প  ইউনিট সমুহে সরবরাহ করা হত। অন্যান্য শিল্প ইউনিটের ন্যায় এই শিল্প ইউনিটটিও পিএসও,কাপ্তাই এর নিকট থেকে বাৎসরিক ৪/৫ লক্ষ ঘনফুট কাঠ সরবরাহ নিত। এই পরিপক্ক ও উন্নতমানের গোলকাঠগুলো চিড়াই ও প্রক্রিয়াজাতকরণের মাধ্যমে বাংলাদেশ রেলওয়ে,বাংলাদেশ পলস্নী বিদ্যুতায়ন বোর্ড, বাংলাদেশ বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড ,বাংলাদেশ নৌ বাহিনী,সড়ক ও জনপথ বিভাগ,বিসিআইসি,বিএসইসি খাদ্য অধিদপ্তর ও বশিউকের অন্যান্য শিল্প ইউনিটসহ প্রাইভেট পার্টির নিকট বৈদ্যুতিক খুঁটি এ্যাংকর লগ,স্টাবিলাইজার লগ,ক্রস-আর্মস,রেলওয়ে সস্নীপার,কেবল ড্রাম,চিড়াই কাঠ ইত্যাদি প্রক্রিয়াজাতকরণ/সিজনিং ট্রিটমেন্ট সহ সরবরাহ করে আসত।

বনবিভাগ/পববেশ ও বন মন্ত্রণালয় কর্তৃক বশিউককে কুপ বরাদ্দ না দেওয়া এবং কর্ণফুলী কাঠ আহরণ ইউনিট, কাপ্তাই পে-অফ হওয়ার প্রেক্ষিতে বশিউকের এই বৃহৎ শিল্প ইউনিটটি কাঁচামাল তথা কাঠের অভাবে দারম্নন সংকটে পড়ে এবং বর্তমানেও এই সংকট অব্যাহত আছে । যে কারনে প্রচুর কার্য্যাদেশ থাকা সত্তেবও কাঠের অভাবে উৎপাদনের লÿ্যমাত্রা অর্জন করা সম্ভব হচ্ছেনা । কাঠ  প্রাপ্তির বিষয়ে কেন্দ্রীয়ভাবে বিকল্প ব্যবস্থা গ্রহন আবশ্যক।কাঁচামাল/কাঠের এই সংকট থেকে উত্তোরনের নিমিত্তে বর্তমান আর্থিক সালে রাবার বিভাগ,চট্রগ্রাম জোনের নিয়ন্ত্রনাধীন দাঁতমারা ও ডাবুয়া জীবনচক্র হারানো রাবার গাছ কর্তন,আহরণ ও পরিবহন পুর্বক এই প্রকল্পটিতে চিড়াই করিয়া ডিফিউশান ট্রিটমেন্টের মাধ্যমে বশিউকের শিল্প ইউনিট সমুহে সরবরাহের ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে ।

রাবার কাঠ প্রক্রিয়াজাতকরণের পাশাপাশি প্রাইভেট উৎস থেকে গর্জন/অন্যান্য প্রজাতির গোল/চিড়াই কাঠ সংগ্রহের পরিকল্পনা হাতে রয়েছে । আশা করা যায়,পরিকল্পনা মাফিক রাবার ট্রিটমেন্টকৃত চিড়াই কাঠ আমত্ম: প্রকল্প সমুহে সরবরাহ সহ খাদ্য অধিদপ্তরের জন্য ডানেজ সরবরাহ এবং বাংলাদেশ নৌ বাহিনীর জন্য চিড়াইকাঠ সরবরাহ করা সম্ভব হলে ২০১১-২০১২ অর্থ বছরে ৫০.০০(পঞ্চাশ লক্ষ) টাকার  উর্দ্ধে নীট লাভ করা সম্ভব হবে।

কিভাবে যাওয়া যায়:

ঢাকা হতে শ্যামলী, এস আলম, ডলফিন,সৌদিয়া অথবা ঈগল বাস যোগে সরাসরি কাপ্তাই লক গেইট নেমে ১ কি:মি: গেলেই বিএফআইডিসি প্রধান ফটক চোখে পড়বে। অথবা ঢাকা হতে ট্রেন যোগে আসতে চাইলে চট্টগ্রাম এসে নামতে হবে। চট্টগ্রাম বদ্দারহাট বাস টার্মিনাল হতে বাস যোগে কাপ্তাই লগ গেইট এসে নামতে হবে এবং লক গেইট হতে ১ কি:মি: গেলেই বিএফআইডিসি'র প্রধান ফটক চোখে পড়বে।


Share with :

Facebook Twitter